রংপুর প্রতিনিধি:

রংপুর নগরীর দেওডোবা এলাকায় আপন বড় ভাই, ভাবি এবং ভাতিজার হাতে শামিম হোসেন (৪০) নামে এক ব্যক্তি খুন হয়েছে। এ ঘটনায় ভাবি ও ভাতিজা কে আটক করেছে পুলিশ।

রবিবার রাত ১০ টার দিকে নগরীর দেওডোবা এলাকায় এই হৃদয় বিদারক ঘটনা ঘটেছে। প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানাগেছে, বৃদ্ধ বাবাকে খাওয়ানোর জন্য মুরগীর মাংষের তরকাড়ি নিয়ে রাতের খাবার শামিম হোসেন তার বড় ভাইয়ের বাড়িতে নিয়ে গেলে শামীমের সাথে বড় ভাবি আনোয়ারা কথা কাটাকাটি লাগে। এক পর্যায়ে সে তার ভাতিজাকে থাপ্পড় দেয়। এ ঘটনার প্রেক্ষিতে শামিমের বড় ভাই জামিল হোসেন এবং ভাবি আনোয়ারা বেগম তার পথ রোধ করে। এ সময় ভাতিজা আতিকুর রহমান হাতুড়ি দিয়ে শামিম হোসেনের কপালে আঘাত হানলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

ঘটনার পর নিহতের বড় ভাই জামিল (৪০) পালিয়ে গেলেও ভাবি আনোয়ারা বেগম এবং ভাতিজা আতিকুর রহমানকে আটক করেছে পুলিশ। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত উপ- পুলিশ কমিশনার শহিদুল্লাহ কাওছার এবং কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুর রশীদ।

অতিরিক্ত উপ- পুলিশ কমিশনার শহিদুল্লাহ কাওছার জানান, নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ঘটনার সাথে জড়িত দুইজনকে আটক করা হয়েছে। আসামী জামিলকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

mktelevision.net/শফিউল করিম শফিক/হাবিব ইফতেখার/শাহিনুর

Leave a Reply

Your email address will not be published.

*