বেনাপোল (যশোর) প্রতিনিধি:
অস্ত্র, মাদক ও মানব পাচার প্রতিরোধে সীমান্ত ব্যবস্থাপনা ও স্থানীয় জনগণের সাথে ২১ বিজিবির মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়৷ সোমবার বেনাপোল পুটখালী বিজিবি ক্যাম্প প্রাঙ্গনে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত সভায় চোরাচালানকৃত পন্য সমগ্রী আটকের বিবরণ দেওয়া হয় যাহা ০১ জানুয়ারী ২০১৯-জুন ২০১৯ পর্যন্ত। বিভিন্ন ধরনের চোরাচালানকৃত পন্য ৪২ কোটি ৭৫ লক্ষ ৩ শত ৭৫টি (৪২,০৫৭,২০,৩৭৫), স্বর্ণ ২৩.৬৭২ কেজি, ফেন্সিডিল ২,০০,৩৯১ বোতল, মদ ৪৪,০০৩ বোতল, গাঁজা ৪২৬৮.৪৪৪ কেজি, হেরোইন ৫.৪২৮ কেজি, নেশাজাতীয় ট্যাবলেট ৩,৪৯,০১৩ পিচ, ইয়াবা ট্যাবলেট ৫৫,৬০,৯৮৬ পিস। এছাড়াও চোরাচালানের সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে আটক ১৪৮৮ জন।

খুলনা ব্যাটালিয়ন (২১ বিজিবি) এ সভার আয়োজন করে। খুলনা বিজিবি সদর সেক্টর কমান্ডার কর্ণেল মোঃ আরশাদুজ্জামান খান, বিজিবি’র খুলনা ব্যাটালিয়ানের অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল ইমরান উল্লাহ সরকার, উপ-অধিনায়ক মেজর সৈয়দ সোহেল আহম্মেদ ও স্থানীয় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পুলক কুমার মন্ডল এ সময় বক্তব্য রাখেন এবং একি সাথে পাঁচভূলাট সীমান্তে চোরাচালানীদের ছোড়া বোমায় নিহত হাবিলদার আকমল হোসেনের জন্য সবাই এক মিনিট নিরবতা পালন করেন।

ভবিষ্যৎ যাতে এমন অপ্রিতিকর ঘটনা না ঘটতে পারে সেজন্য সবাইকে সজাগ থাকার নির্দেশ দেন। চোরাচালান রোধে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে প্রতিরোধের জন্য জোর আহবান জানান৷

মোঃ রাসেল ইসলাম/হাবিব ইফতেখার/শাহিনুর

Leave a Reply

Your email address will not be published.

*