ঘাটাইল (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি:

ঈদের আনন্দকে একটু বর্ণিল করতে মানুষ ছুটছে নানান গন্তব্যে। শিশু-কিশোরসহ সকল বয়সের মানুষ ঈদে চায় বাড়তি কিছু আনন্দ। আর এই আনন্দে মেতে ওঠার জন্য টাঙ্গাইলের ঘাটাইলের একমাত্র বিনোদন কেন্দ্র শাপলা শিশু পার্কে দর্শনার্থীদের ছিল উপচে পড়া ভীড়। দেশের অন্যান্য উপজেলায় সমূহে সাধারণ মানুষের চিত্ত বিনোদনের জন্য নানান ব্যবস্থা থাকলেও উদ্যোক্তার অভাবে ঘাটাইলে সেভাবে কোন বিনোদন পার্ক গড়ে ওঠেনি।

সম্প্রতি ঘাটাইল পৌর এলাকায় বাজার সংলগ্ন ঘাটাইল পশ্চিমপাড়া এলাকায় রাস্তার পাশে স্বল্প পরিসরে শাপলা শিশু পার্ক নির্মান করা হয়। প্রায় ৪ বিঘা জায়গায় উপর স্থাপিত এ পার্কই এখন বিনোদন প্রেমি মানুষ ক্ষণিক আনন্দের উৎস্য হয়ে উঠেছে। ঈদ উপলক্ষে তাই এ পার্কে ছিল মানুষের ব্যাপক সমাগম। সকল বয়সী মানুষ আনন্দে একাকার হয়ে পার্কে ভীড় করেছে। শিশু-কিশোররা উঠেছে বিভিন্ন রাইডে।

বিশিষ্ট ব্যাক্তিরা বলেন, ঘাটাইলে ইতিপুর্বে কোন রকম বিনোদনের জন্য পার্ক ছিলো না, ব্যাক্তি মালিকানায় এই বিনোদন পার্কটি হওয়ায় সংশিষ্ট মালিক পক্ষকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন। এই বিনোদন পার্কটি হওয়ায় উঠতি বয়সের ছেলেদের নেশার মতো মরণ ছোবল হতে রক্ষা করা যাবে। ঘাটাইলে বিনোদনের জন্য তেমন কোন স্থান নেই। এই শাপলা শিশু পার্কটি প্রতিষ্ঠিত করায় চিত্ত বিনোদনের জন্য অনেক সহায় হয়েছে যে কারনে দেখা যায় উঠতি বয়সের ছেলেরা এই বিনোদন পার্কে এসে আত্মতৃপ্তি লাভ করছে। ঘাটাইলে আরো এমন বিনোদন পার্ক তৈরী হোক যাতে করে সামাজিক ভাবে মানুষের চিত্তবিনোদনের ব্যবস্থা হয় এবং সামাজিক কিছু ব্যাধি থেকে তরুন সমাজকে রক্ষা করা হোক এমন প্রত্যাশা সকলের।

শাপলা শিশু পার্কের স্বত্বাধিকারী মো: শাজাহান আলী সরকার জানান, ঘাটাইলের বিপথগামী তরুনদের সুস্থ্য বিনোদনের জন্য আরো অনেক ভালো কিছু করার চিন্তা ভাবনা করছেন আর এজন্য সমাজের সচেতন মহল এবং সরকারী পৃষ্ঠপোষকতার দরকার।

আব্দুল লতিফ/হাবিব ইফতেখার/শাহিনুর

Leave a Reply

Your email address will not be published.

*