ঘোড়াঘাট (দিনাজপুর) প্রতিনিধি:

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটে গৃহবধু রফিকা বেগমকে শশুর কর্তৃক যৌন হয়রানির করার পর হত্যা করে নিজ ঘরের তীরের সাথে গলায় দড়ি পেছিয়ে ঝুলিয়ে রাখে। এ হত্যাটি ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করলে মৃত গৃহবধুর পিতা রফিকুল ইসলাম বাদী হয়ে রবিবার ঘোড়াঘাট প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেছে।

তিনি তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, গেল ১২ জুলাই রাতে তার কন্যা মোছাঃ রফিকা বেগমকে শশুর হবিবর রহমান জোর পুর্বক ধর্ষণ করার চেষ্টা করেন। এ সময় সে আত্বচিৎকার করলে শাশুরী তাকে রক্ষা করেন। এতে আমার কন্যা লজ্জায় পাশর্^বত্তি নিজ ঘরে যায়, সেখানেও লম্পট শশুর হবিবর রহমান তার উপর শারীরিক নির্যাতন শেষে তাকে বালিশ চাপা দিয়ে হত্যা করে ঘরের তীরের সাথে ঝুলিয়ে রাখেন।

এ ঘটনায় মৃতা রফিকার পিতা রফিকুল ইসলাম থানায় একটি ইউডি মামলা ও দিনাজপুর আদালতে একটি হত্যা মামলা করেছেন। তিনি সংবাদ সম্মেলনে মেয়ের হত্যাকারীর বিচারের দাবী জানান।

মোঃ সামসুল ইসলাম সামু/হাবিব ইফতেখার/শাহিনুর/এস রহমান

Leave a Reply

Your email address will not be published.

*