রংপুর প্রতিনিধি:
জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুতে রংপুর অঞ্চল তথা উত্তরাঞ্চল সহ সারাদেশে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। সোমবার সকালে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। তার মৃত্যুতে জাতীয় পার্টির নেতাকর্মী ও এরশাদ ভক্তরা ভেঙ্গে পড়েছেন। আমাদের রংপুর সহকর্মী এস রহমানারে পাঠানো তথ্য ও ছবি নিয়ে দেখুন একটি ডেস্ক রির্পোট।

হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ পৃথিবী থেকে চিরবিদায় নিয়েছেন, তার মৃত্যুতে রংপুরসহ দেশবাসীর অপুরণীয় ক্ষতি হয়ে গেলো। যা কোনদিনই পুরণ হবার নয়। রংপুরসহ দেশের উন্নয়নের তার অবদান চিরস্বরণীয় হয়ে থাকবে।

রংপুর জেলা ও মহানগর জাপার দলীয় কার্যালয়ে জরুরী সভায় এরশাদের নিজের আবাসভুমি রংপুরে চতুর্থ জানাযায় রাজশাহী ও রংপুর বিভাগের সকল জেলা উপজেলার নেতা কর্মীদের সমাবেত করার মাধ্যমে বৃহৎ জানাযা অনুষ্ঠানের ব্যপক প্রস্তুতি গ্রহন করা হয়েছে।

সেনা প্রধান থেকে রাষ্ট্রপ্রধান হওয়া এই রাজনীতিবীদের মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে তার নিজ এলাকা রংপুরে জাতীয় পার্টিসহ রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক অঙ্গণে নেমে আসে শোকের ছায়া। অনেকেই নগরীর সেন্ট্রাল রোডের জেলা জাতীয় পার্টির অফিস, দর্শনার পল্লী নিবাস ও তার পৈত্রিক নিবাস রংপুর নগরীর সেনপাড়ার স্কাইভিউ বাড়িতে ভিড় করছেন ভক্ত ও স্বজনরা। অনেকে দাবি করছেন এই মহান নেতা এরশাদের নিজ এলাকা রংপুরে তাঁর কবর দেওয়া হোক। আজ থেকে শুধু রংপুর অঞ্চলই নয় তথা দেশের এক মহান রাজনৈতিক নেতাকে হারানোর ফলে রাজনীতিতে এখন শূন্যতা বিরাজ করবে।

এস করিম/হাবিব ইফতেখার/শাহিনুর

Leave a Reply

Your email address will not be published.

*