দীর্ঘ ১১ মাস প্রচেষ্টার পর ইমরানের লাশ দেশে পাঠানোর ব্যবস্থা করেছেন মাল্টা প্রবাসী বাংলাদেশীরা

30
0

ইতালি প্রতিনিধি:
ইউরোপে পাড়ি দেয়ার স্বপ্ন নিয়ে অবৈধ্য সাগর পথ বেছে নেয় শরীয়তপুরের ইমরান খান সুজন। ভাগ্যের পরিহাসে সাগরই হয় তার শেষ ঠিকানা। এক সময় ইমরানের লাশ দেশে নিতে স্বজনরা অনিহা প্রকাশ করলেও পর স্বপ্নবাজ ইমরানের লাশ দেশে পাঠানোর ব্যবস্থা করে মাল্টা প্রবাসী বাংলাদেশীরা।

২০১৮ সালের শুরুর দিকে দালালের মাধ্যমে ইউরোপের উদ্দেশ্যে প্রথমে লিবিয়ায় যান ইমরান খান। সেখানে আট মাস থেকে ১৬ আগস্ট ছোট একটি নৌকায় করে ইউরোপের উদ্দেশ্যে ৮৪ জন পাড়ি জমান। কিন্তু সেই সাগর পথে নৌকাতেই মারা যান তিনি। বহনকারী নৌকাটি মাল্টায় পৌঁছালে জীবিত ও ইমরানের লাশ উদ্ধার করে দেশটির কোস্ট গার্ডের সদস্যরা।

দীর্ঘ দিন সরকারি মর্গে থাকা লাশটি শনাক্ত করা গেলেও লাশটি দেশে নেয়া ব্যয়বহুল জেনে স্বজনরাও নিতে অনীহা প্রকাশ করেন। তবে মাল্টা প্রবাসীরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে সকল জটিলতার অবসান ঘটিয়ে লাশটি অবশেষে দেশে পাঠাতে সক্ষম হয়েচ্ছেন তারা। লাশ প্রেরনকারী সংশ্লিষ্ট কাউসার আপেল আমিন তুলে ধরেন তাদের প্রচেষ্টার কথা …গেল ২৮ জুন শুক্রবার সকাল ১১ টায় স্থানীয় পাওলা জামে মসজিদে ইমরানের জানাযা শেষে বিকাল ৩ টায় পরিবারের কাছে পাঠানোর কাজ সম্পন্ন করে মাল্টা প্রবাসী বাংলাদেশীরা ।

অবৈধভাবে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিতে বাংলাদেশিসহ অন্যদেশীরা ঝাপিয়ে পড়ে মরণ পথে, তাদের অনেকের সাগরেই হয়ে যায় শেষ ঠিকানা, মিলিয়ে যায় নুনা জলে। হতভাগা সেই তরুনদের মধ্যে থেকে লাশ হয়ে ফিরছে স্বপ্নবাজ ইমরান
জাকির হোসেন সুমন/হাবিব ইফতেখার/শাহিনুর/এস রহমান

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here