ডেস্ক রিপোর্ট :

দিনাজপুরের পার্বতীপুর উপজেলার ৮টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে ৭ মে।নিয়মতান্ত্রিক ভাবে ভোট কেন্দ্র পর্যবেক্ষনের পাশাপাশি সঠিক তথ্য সংগ্রহ করে পেশাগত দায়িত্ব পালনের জন্য সকল গণমাধ্যম কর্মীদের পর্যবেক্ষণ কার্ড প্রদান করা হয় সেই মোতাবেক পার্বতীপুর নির্বাচন অফিসে সময় অনুযায়ী সকলে যোগাযোগ করলে নির্বাচন অফিসার জিকরুল হক ব্যস্ততার কথা বলে গণমাধ্যম কর্মীদের নির্বাচন পর্যবেক্ষক কার্ড প্রদান না করে অপারগতা প্রকাশ করে। ফলে ভোগান্তির স্বীকার হন তারা। নিয়ম অনুযায়ী নির্বাচনীয় পর্যবেক্ষনের জন্য প্রয়োজনীয় কাগজ পত্র দাখিল করে ৬ মে সন্ধায় সকল গণমাধ্যম কর্মীদের আসতে বললেও তিনি কার্ড দিতে ব্যর্থতার পরিচয় দিয়ে ক্ষুদ্ধ হয়ে যান। কেন এমন আচরণ জানতে চাইলে জিকরুল হক এক পর্যায় অফিস থেকে বাহিরে গিয়ে মুল পর্যবেক্ষক কার্ডের কিছু ফটোকপি এনে গুটিকয়েক জনকে হাতে দেন। অন্যরা না পেলে ক্ষোভ প্রকাশ করলে, পরে দেওয়া হবে বলে তিনি অফিস থেকে সটকে পড়েন। এতে উপস্থিত গণমাধ্যম কর্মীরা তার অপেক্ষা করতে করতে রাত হয়ে যায়। তাকে মোবাইলে যোগাযোগ করলে তিনি ১০মিনিট অপেক্ষা করতে বলেন এভাবে প্রায় ২ঘন্টা অতিবাহিত হলে, অবশেষে ক্ষোভ প্রকাশ করে রাত পৌনে ১১টায় গণমাধ্যম কর্মীরা কার্ড না পেয়ে নিজ বাড়ী ফিরে যায়।

এতে ক্ষোভ প্রকাশ করে দৈনিক করতোয়ার প্রতিনিধি সাংবাদিক মন্জুরুল আলম বলেন………………..

এনিয়ে সাংবাদিক জহির রায়হান বলেন…………………………..

দৈনিক মানবকথা ডট কম এর সম্পাদক ডাঃ মোঃ রোকুনুজ্জামান বলেন……………
এসময় নির্বচনী প্রার্থীদের মটর সাইকেলের অনুমতি ও এজেন্টর জন্য ঘন্টার পর ঘন্টা অপেক্ষা করতে দেখা যায়। এবং এজেন্টদের কাছ থেকে উৎকোচ নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। এব্যপারে মোহনা টেলিভিশনের প্রতিনিধি ও এমকে টেলিভিশন ডট নেটের চেয়ারম্যান মোবাইলে বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে অবহিত করেন।

mktelevision.net/ইফতেখার/রাজু/আলমামুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

*