ময়ূরকন্ঠী ডেস্ক :

ব্র্যান্ড নকিয়া কোন এক সময় মোবাইল বিশ্ব বাজারে একচ্ছত্র ভাবে আধিপত্য বিস্তার করেছিল। কিন্তু তা বেশী দিন ধরে রাখতে পারেনি প্রতিযোগিতার বাজারে। ব্যবসা পড়তি দেখে নকিয়া বাধ্য হয়ে মাইক্রোসফটকে চুক্তিভিত্তিক বিক্রি করে। মাইক্রোসফটের সঙ্গে নকিয়ার চুক্তি শেষ হচ্ছে এবছর অর্থাৎ ২০১৬ সালে। তাই নতুন করে নকিয়া ফোনের বাজারে প্রবেশ করার জন্য পুরোপুরি প্রস্তুত। ফোনের বাজারে অ্যানড্রয়েড ফোন সকলের প্রিয় তাই ফিচার ফোন আর সিমব্রিয়ান অপারেটিং সিস্টেমের বদলে নকিয়া আনছে অ্যানড্রয়েড ফোন। প্রতিষ্ঠানটি ইতিমধ্যে ফোনের বেশ কয়েকটি অংশ সম্পর্কে ইন্টারনেটে তথ্য ও ছবি প্রকাশ করেছে। এদের মধ্যে একটি ফোন হলো NOKIA E1। জানাগেছে রাশিয়ান প্রখ্যাত ডিজাইনার ডিমিট্রি মেজেনিন NOKIA E1 এই দৃষ্টি নন্দন নতুন সেটটির নকশা বানিয়েছেন। সুনিপুণ দক্ষতার কারণে NOKIA E1 এর প্রতিটি পার্টকে দেখায় আকর্ষনীয়। বডি হবে মেটালের এবং বাকানো ডিসপ্লে। সেটটি ৪.৯ ইঞ্চি হাই ডেফিনেশন আইপিএস ডিসপ্লে হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ২ জিবি র্যামের সঙ্গে এটিতে থাকবে ৩২ জিবি বিল্ট ইন মেমোরি। ২.৩ গিগাহার্টজের গতির ৬৪ বিটের এটম প্রসেসর, পাওয়ার ভি আর জি ৬৪৩০ গ্রাফিক্স থাকবে সেটটিতে। NOKIA E1 এ দীর্ঘক্ষণ ব্যবহারের জন্য ২৭০০ মিলি অ্যাম্পিয়ার আওয়ারের ব্যাটারি থাকবে। NOKIA E1 এর ২০ মেগা পিক্সেলের রিয়ার ক্যামেরা এবং সেলফি তোলার জন্য ৫ মেগা পিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা থাকবে। সেটটি অ্যানন্ড্রয়েড ললিপপ অথবা অ্যানড্রয়েড ৬ মার্শম্যালো দিয়ে পরিচালিত হবে। সাথে থাকবে নকিয়ার নিজস্ব জেড লাঞ্চার। সেটটির দাম কত হবে বাজার মূল্য সম্পর্কে নিশ্চিত তথ্য জানা না গেলেও তবে ধারণা করা হচ্ছে ২০০ থেকে ৩০০ ডলার হতে পারে। আমদানী খরচ, টেক্স-ভ্যাট ইত্যাদি যোগ করে ১৮ হাজার থেকে ২৫ হাজার হতে পারে।

mktelevision.net/নাভিদ মুসতাসিম ঋষু/রাজু কুমার দাস/আল মামুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

*