policeঝিনাইদহ প্রতিনিধি:  ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুর থানা অভ্যন্তরে নিজ রাইফেলের গুলিতে সোলাইমান হোসেন (২৫) নামের এক কনস্টেবল নিহত হয়েছেন। সোমবার দুপুর পৌর ২টার দিকে সেন্ট্রি ডিউটি করার সময় রাইফেলের গুলিতে তিনি নিহত হন। তিনি গত ২৯ ফেব্রুয়ারি কোটচাঁদপুর থানায় যোগদান করেন। তবে এটি আত্মহত্যা নাকি অসাবধনতাবশত হয়েছে তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আজবাহার আলী শেখ। নিহত সোলাইমান যশোর জেলার ঝুমঝুমপুর এলাকার দায়তলা গ্রামের মোদাচ্ছের আলী মণ্ডলের ছেলে। কোটচাঁদপুর থানার সেকেন্ড অফিসার জয়নাল আবেদীন জানান, সোমবার দুপুরে থানায় তিনি ডিউটি করছিলেন। কিছু বুঝে ওঠার আগেই চেয়ারে বসে থাকা অবস্থায় নিজের চাইনিজ রাইফেলের গুলিতে তিনি মারা যান। গুলিটি তার বুকের বামপাশে বিদ্ধ হয়। তিনি আরো জানান, এ সময় তিনি থানা ভবনের ওপরে বিশ্রামে ছিলেন। গুলির শব্দ শুনে নিচে নেমে এসে দেখেন কনস্টেবল সোলাইমান গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। তাকে কোটচাঁদপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হলে দায়িত্বরত চিকিৎসক ডা. আজিজুর রহমান তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ডা. আজিজুর রহমান সাংবাদিকদের জানান, এটি আত্মহত্যা কিনা জানি না। তবে গান ইনজুরিতে তিনি নিহত হয়েছেন। এ বিষয়ে ঝিনাইদহ জেলা পুলিশের মুখপাত্র আজবাহার আলী শেখ জানান, অসাবধানবশত নিজের গুলিতে সোলাইমান নামে এক কনস্টেল নিহত হয়েছেন। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

*